ভালোবাসা কাকে বলে

ভালোবাসা কাকে বলে

ভালোবাসা কাকে বলে সেটা কি জানেন? কি যাদু আছে ভালোবাসাতে সেটা কি বুজতে পেরেছেন কখনো? অনেক কিছুই বলে বোঝানো সম্ভব না আর তার মধ্যে ভালোবাসা একটি। আমাদের এই ওয়েবসাইটে পাবেন অনেক ভালোবাসার ছবি যা দেখে কিছুটা ভালোবাসা ভালোবাসা বলে মনে হবে। চলুন তাহলে দেখে নেই সেই ভালোবাসার পিকচার গুলো।

ভালোবাসা কাকে বলে

কিছু কিছু জিনিস আছে যা চাইলে ও পাওয়া যায় না। আর কিছু কিছু জিনিস আছে যা অসময়ে আসে আর অসময়ে চলে যায়। আবার কিছু জিনিস আছে যা এসে একজন মানুষের জীবনটাই পালটে দেয়।

এই সব কিছু জিনিসের দলে কিন্তু ভালোবাসার নামটা লেখা যায়। কারন এটা এতোটাই জটিল বিষয় যে সেটা বলে বোঝানো খুবই মুশকিল। শুধুমাত্র উপলব্ধি করা সম্ভব। অনেকটা ছবি দেখে উপলব্ধি করার মতো কিছু বলতে পারেন।

অনেক ভাবেই অনেকে ভালোবাসার ব্যাখ্যা দিয়ে থাকেন কিন্তু আসলে যে ভালোবাসার মানেটা সবার কাছে এক রকম নয়, সেটা অনেকই বুঝতে পারেন না।

হয়তো কেউ আপনাকে অনেক কষ্ট দিচ্ছে, অনেক অপমান করছে, তারপরে ও আপনি তাকে ছেড়ে যাচ্ছে না। কেনো যে ছেড়ে যাচ্ছেন না সেটা আপনি হয়তো জানেন না আর হতে পারে মায়া লাগে ছেড়ে যেতে। তাহলে বুজতে হবে আপনি তাকে পছন্দ করেন। এটা কিন্তু ভালোবাসা নয়।

আবার হতে পারে স্কুলে বা কলেজে বা ভার্সিটিতে কেউকে দেখে আপনার খুব পছন্দ হলো। কিংবা কোচিং বা ক্লাসে একসাথে পড়ার সময় বন্ধুত্ব, তারপরে ভালোলাগা শুরু হলো। এটা ও কিন্তু ভালোবাসা নয়। এটা হচ্ছে একজন বিপরিত লিঙ্গের কেউ অনেক সময় সামনে থাকলে বা একসাথে থাকলে তার প্রতি ভালোলাগা জন্মে, ভালোবাসা নয়।

ভালোবাসা অন্য এক জিনিস। এটাকে বুঝতে হলে আগে বুঝতে হবে কোথা থেকে শুরু হয় এই ভালোবাসার। একজন মানুষের প্রথম ভালোবাসা শুরু হয় যখন সে মায়ের পেটে থাকে। আর তার মা এতো কষ্ট করে তাকে যত্ন করে আদর করে, তবুও ছেড়ে চলে যায় না কখনো। এটাকেই বলে ভালোবাসা।

রক্তে সম্পর্কের বাইরে ভালোবাসা টা শুরু হয়ে বিয়ের পর থেকে। অনেক ঝগড়া হয়, অনেক মান অভিমান, অনেক অভাব থাকে, তবুও আপনার বউ কিন্তু আপনাকে ছেড়ে যাবে না। যদি ও অনেক কথা শুনাবে, তবে ছেড়ে যাবে না। আর যদি চলে যা ছেড়ে তাহলে ভাববেন সে আসলে কখনো আপনার বউ ই ছিলো না।

কারন স্বামী স্ত্রীর বন্ধুন সারা জীবনের। এ বন্ধন ভাংতে পারে একমাত্র আল্লাহর দেয়া মরন, অন্য কিছু না। আবার কিছু স্বামীও আছেন যারা নিজের স্ত্রী সন্তান ছেড়ে চলে যান। তারাও কখনো কারো স্বামী হয়নি। কারন তারা মানুষ না, মানুষ হলে এমন কাজ করতে পারে না।

আমাদের আধুনিক যুগের ছেলে মেয়েরা তো ভালোবাসা মানে মনে করে কিছুদিন হাতে হাত রেখে হাটা, কখনো বুকে মাথা রেখে পার্কে বসে থাকা, আর সারা রাত কথা বলা, আর মাঝে মাঝে সুযোগ পেলেই ভালোবাসার দোহাই দিয়ে কারো ইজ্জত নেয়া বা নিজের ইজ্জতটা দিয়ে দেয়া। আর ভালো না লাগলেই বা অন্য কাউকে ভালো লাগলে ছেড়ে চলে যাওয়া।

এগুলো ভালোবাসা নয়, এগুলোকে বলে অন্যায়। মনে রাখবেন, সত্যিকারের ভালোবাসায় কখনো ছাড়া ছাড়ি বা ব্রেকাপ হয় না।

One thought on “ভালোবাসা কাকে বলে”

  1. That is a really good tip particularly to those new
    to the blogosphere. Brief but very accurate information…
    Thank you for sharing this one. A must read
    article!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *